কওমি মাদরাসার ছয় বোর্ডে শীর্ষে চট্টগ্রামের ইত্তেহাদ

কওমি মাদরাসার সম্মিলিত শিক্ষাবোর্ড আল হাইআতুল উলয়া লিল জামিআতিল কওমিয়া দাওরায়ে হাদিসের ফলাফল প্রকাশ করেছে আজ। গত বছর থেকে শুরু হওয়া সম্মিলিত এ বোর্ডের অধীনে দেশের মোট ৬টি কওমি শিক্ষাবোর্ডের শিক্ষার্থীরা অংশ নিয়েছেন।
ছয় বোর্ডের বাইরে হাইআতুল উলয়ার কেন্দ্রীয় দফতরের অধীনেও পরীক্ষা দিয়েছেন বিভিন্ন মাদরাসার কয়েকটি মাদরাসার শিক্ষার্থী, যারা কোনো বোর্ডের অধীনে নয়।
হাইআতুল উলিয়ার এ পরীক্ষায় অংশ নেওয়া মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ২০,৭৪৯ জন। মোট ৩২২টি কেন্দ্রের অধীনে ১ হাজার ৩৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছে এবার।
ছয় বোর্ডের মধ্যে ফাস্ট হয়েছে ইত্তেহাদুল মাদারিসিল কাওমিয়্যা বাংলাদেশ।

দাওরায়ে হাদিসের ফলাফল : কোন বোর্ডের পাসের হার কত?

কওমি মাদরাসার সম্মিলিত শিক্ষাবোর্ড আল হাইআতুল উলয়া লিল জামিআতিল কওমিয়া দাওরায়ে হাদিসের ফলাফল প্রকাশ করেছে আজ। গত বছর থেকে শুরু হওয়া সম্মিলিত এ বোর্ডের অধীনে দেশের মোট ৬টি কওমি শিক্ষাবোর্ডের শিক্ষার্থীরা অংশ নিয়েছন।

ছয় বোর্ডের বাইরে হাইআতুল উলয়ার কেন্দ্রীয় দফতরের অধীনেও পরীক্ষা দিয়েছন বিভিন্ন মাদরাসার কয়েকটি মাদরাসার শিক্ষার্থী, যারা কোনো বোর্ডের অধীনে নয়।

হাইআতুল উলয়ার এ পরীক্ষায় অংশ নেয়া মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ২০,৭৪৯ জন। মোট ৩২২টি কেন্দ্রের অধীনে ১ হাজার ৩৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছে এবার।
পাশের হার ৭৩.৩৪।

সবগুলো বোর্ডের সম্মিলিত ফলাফল

বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ : পাশের হার ৭০.৩৫%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ১৬,৬১২ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ১১,২৫৭ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৫,৩৩৫ জন। ২৫৭ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৮৬৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৬৩ জন মুমতাজ, ২৭৮৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৫,৫৮৬ জন জায়্যিদ এবং ৪,৭২৬ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

বেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া গওহরডাঙ্গা বাংলাদেশ : পাসের হার ৬৬.২৬%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৫৪৯ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৪০৯ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ১৪০ জন। ১১ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৩০টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া গওহরডাঙ্গার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪ জন মুমতাজ, ৩৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ১০৬ জন জায়্যিদ এবং ১৩৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

আযাদ দ্বীনী এদারায়ে তা’লীম বাংলাদেশ : পাসের হার ৫০.৬৩%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ১,৩৩৭ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৯৯৪ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৩৪৩ জন। ২৫ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৭২টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

আযাদ দ্বীনী এদারায়ে তা’লীম-এর অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪৩ জন মুমতাজ, ২১২ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৩৬৩ জন জায়্যিদ এবং ২৬৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়া বাংলাদেশ : পাসের হার ৭৭.৯৫%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৯৫৭ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৯৯৪ জন। এ বোর্ডের অধীনে কোনো ছাত্রী পরীক্ষা দেননি। ১৩ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ২২টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৩ জন মুমতাজ, ২২৭ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৮৮ জন জায়্যিদ এবং ১৭৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

আঞ্জুমানে ইত্তেহাদুল মাদারিস বাংলাদেশ : পাসের হার ৭৯.৯৩%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৮৮২ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৮৩৮ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৪৪ জন। ১০ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ১৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৩ জন মুমতাজ, ২২৭ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৮৮ জন জায়্যিদ এবং ১৭৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যা বাংলাদেশ : পাসের হার ৫৬.০৭%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৩২১ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ২২৮ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৯৩ জন। ৪টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ২৪টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪ জন মুমতাজ, ৩৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৭৮ জন জায়্যিদ এবং ৬৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাস করেছে।

আল হাইআতুল উলয়া কেন্দ্রীয় দফতর : পাসের হার ৫৬.০৪%
হাইআতুল উলয়ার কেন্দ্রীয় দফতরের অধীনে মোট ৯১ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৬৪ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ২৭ জন। ২টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৪টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৬ জন জায়্যিদ এবং ২৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

সবগুলো বোর্ডের সম্মিলিত ফলাফল

বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ : পাশের হার ৭০.৩৫%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ১৬,৬১২ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ১১,২৫৭ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৫,৩৩৫ জন। ২৫৭ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৮৬৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৬৩ জন মুমতাজ, ২৭৮৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৫,৫৮৬ জন জায়্যিদ এবং ৪,৭২৬ জন মাকবুল বিভাগ পেয়েছে।

বেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া গওহরডাঙ্গা বাংলাদেশ : পাসের হার ৬৬.২৬%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৫৪৯ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৪০৯ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ১৪০ জন। ১১ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৩০টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া গওহরডাঙ্গার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪ জন মুমতাজ, ৩৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ১০৬ জন জায়্যিদ এবং ১৩৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়েছে।

আযাদ দ্বীনী এদারায়ে তা’লীম বাংলাদেশ : পাসের হার ৫০.৬৩%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ১,৩৩৭ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছে। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৯৯৪ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৩৪৩ জন। ২৫ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ৭২টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

আযাদ দ্বীনী এদারায়ে তা’লীম-এর অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪৩ জন মুমতাজ, ২১২ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৩৬৩ জন জায়্যিদ এবং ২৬৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাস করেছে।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়া বাংলাদেশ : পাসের হার ৭৭.৯৫%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৯৫৭ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৯৯৪ জন। এ বোর্ডের অধীনে কোনো ছাত্রী পরীক্ষা দেননি। ১৩ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ২২টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৩ জন মুমতাজ, ২২৭ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৮৮ জন জায়্যিদ এবং ১৭৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাস করেছে।

আঞ্জুমানে ইত্তেহাদুল মাদারিস বাংলাদেশ : পাসের হার ৭৯.৯৩%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৮৮২ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৮৩৮ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৪৪ জন। ১০ টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছে ১৮টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

তানযীমুল মাদারিসিদ দ্বীনিয়ার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫৩ জন মুমতাজ, ২২৭ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৮৮ জন জায়্যিদ এবং ১৭৮ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাস করেছে।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যা বাংলাদেশ : পাসের হার ৫৬.০৭%
এ বোর্ডের অধীনে মোট ৩২১ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ২২৮ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ৯৩ জন। ৪টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছেন ২৪টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৪ জন মুমতাজ, ৩৪ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ৭৮ জন জায়্যিদ এবং ৬৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাসের তালিকায় নাম লিখিয়েছেন।

আল হাইআতুল উলয়া কেন্দ্রীয় দফতর : পাসের হার ৫৬.০৪%
হাইআতুল উলয়ার কেন্দ্রীয় দফতরের অধীনে মোট ৯১ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন। এদের মধ্যে ছাত্রসংখ্যা ৬৪ জন এবং ছাত্রীসংখ্যা ২৭ জন। ২টি কেন্দ্রের অধীনে অংশ নিয়েছে ৪টি মাদরাসার শিক্ষার্থী।

বেফাকুল মাদারিসিদ্দীনিয়্যার অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১ জন জায়্যিদ জিদ্দান, ২৬ জন জায়্যিদ এবং ২৪ জন মাকবুল বিভাগ পেয়ে পাস করেছে।

দাওরায়ে হাদিসের ফলাফল ঘোষণা; পাশের হার ৭৩.৩৪।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
দয়া করে আপনার নাম লিখুন