নামাজের জন্য মসজিদ কি অপরিহার্য, ভারতীয় সুপ্রিম কোর্টের রায় আজ

নামাজ পড়তে কি মসজিদেই যেতে হবে? নাকি যে কোনও জায়গায় বসেই পড়া যেতে পারে। তা নিয়েই আজ রায় দিতে চলেছে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট।

আর এই রায়ের ওপরেই অনেকটা নির্ভর করছে অযোধ্যা জমি জটের ভবিষ্যৎ। অবসরের আগে এটিই শেষ রায় হতে চলেছে দেশটির সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রের। খবর আনন্দবাজারপত্রিকার।

১৯৯৪ সালে ভারতের সর্বোচ্চ আদালত সাফ জানিয়ে দিয়েছিল যে, নমাজ যে কোনও জায়গায় পড়া যেতে পারে। তার জন্য মসজিদ অপরিহার্য নয়। সঙ্গে এও জানিয়ে দিয়েছিল, সরকার প্রয়োজনে মসজিদের জমির দখল নিতে পারবে।

আড়াই দশকের পুরনো এই রায়কেই চ্যালেঞ্জ জানিয়েছিল বেশ কয়েকটি মুসলিম দল। তাদের বক্তব্য ছিল, অযোধ্যা জমি জটে এই রায় বড় ভূমিকা নিয়েছিল।

এই রায়ের ভিত্তিতেই ইলাহাবাদ হাইকোর্ট অযোধ্যার বিতর্কিত জমিটিকে তিন ভাগে ভাগ করেছিল। যার মূল অংশটি চলে গিয়েছিল হিন্দুদের কাছে।

পরবর্তীকালে ইলাহাবাদ হাইকোর্টের এই সিদ্ধান্তকে সুপ্রিম কোর্টে চ্যালেঞ্জ করেছিল হিন্দু এবং মুসলিম সংগঠনগুলো। ইসলামে কি সত্যিই মসজিদ অপরিহার্য?

তা নিয়ে সর্বোচ্চ আদালতের রায়ের পুনর্বিবেচনা করে সিদ্ধান্তে আসার ওপর অনেকটাই নির্ভর করছে অযোধ্যা মামলার ভবিষ্যৎ।

জেএস/

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
দয়া করে আপনার নাম লিখুন