নারায়ণগঞ্জে গ্যাসের আগুনে একই পরিবারের ৯ জন দগ্ধ

নারায়ণগঞ্জে গ্যাসের পাইপ লাইনের ছিদ্র থেকে আগুন লেগে একই পরিবারের নয়জন দগ্ধ হয়েছে। তাদের মধ্যে নারী ও শিশু রয়েছে। নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার হকবাজার এলাকায় চারতলা ভবনের তৃতীয় তলায় আজ ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে।

আগুনে দগ্ধ ওই বাড়ির ভাড়াটে পোশাক তৈরির দোকানের মালিক শ্রীনাথ চন্দ্র বর্মণের (৪০) ভাষ্য, আজ ভোরে পরিবারের সবাই দরজা-জানালা বন্ধ করে ঘুমিয়ে ছিলেন। ভোরে আলো জ্বালাতেই আগুন দেখতে পান। এ ঘটনায় সবাই দগ্ধ হন। প্রতিবেশী অনাথ চন্দ্রসহ অন্যরা তাঁদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেন।

আগুনে আরও দগ্ধ হয়েছেন শ্রীনাথের স্ত্রী অর্চনা (৩৫), মেয়ে অনামিকা (১৫), ছেলে অর্পিত (৯), মা ছায়া রানী (৬০), বোন সুমিত্রা (২৭), জামাতা নারায়ণ চন্দ্র (৪০), ভাতিজা প্রমিত (১৪) ও শাওন (১০)।

চিকিৎসকের বরাত দিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপপরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া বলেন, চারজনের অবস্থা গুরুতর। অন্যদের অবস্থাও আশঙ্কামুক্ত নয়। বদ্ধ ঘরে আগুন লাগলে শ্বাসনালিতে আগুন ঢোকে। এতে শ্বাসনালি পুড়ে যায়। দগ্ধ অবস্থায় আজ সকালে নয়জনকে হাসপাতালে আনা হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
দয়া করে আপনার নাম লিখুন