দাফনের এক বছর পর রোহিঙ্গার অক্ষত লাশ উদ্ধার

গতকাল ১৮ জুলাই টেকনাফে দাফনের এক বছর পর অক্ষত অবস্থায় পাওয়া যায় এক রোহিঙ্গানারীর লাশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গত কোরবানির পর বৌদ্ধদের নির্যাতনে জন্মভুমি ছেড়ে পালিয়ে আসার সময় সাগরে নৌকা ডুবে গেলে ৪ রোহিঙ্গা নারীর লাশ আমাদের সৈকতে ভেসে আসে। আমরা জানাজা শেষে তিনজনকে দরগারছড়া হাতিয়ারঘোনা কবরস্থানে এবং একজনকে হাবিরছড়া সাগর পাড়ের ঝাউবনে দাফন করি। এখন বর্ষার জোয়ারের পানিতে হাবিরছড়ার ঝাউবাগান প্রায় বিলিন হয়ে যায়। গতকাল সকালে জেলেরা সাগরে মাছ শিকারে যাওয়ার সময় এক বছর আগে দাফন করা ঐ অজ্ঞাত রোহিঙ্গা নারীর লাশ দেখতে পায়। এ খবর মুহুর্তেই এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। পরে লাশটি হাবিরছড়া কবরস্থানে নিয়ে আবার দাফন করি আমরা স্থানীয়’রা।

স্থানীয় মসজিদের খতিব মাওলানা মুহি উদ্দিন বলেন, জীবনে এই প্রথম একজন শহীদের লাশ দেখেছি। সৈয়দ আহমদ নামে একজন বলেন, বছর খানেক আগে আমরা ঝাউবনে লাশটি দাফন করেছিলাম। (সূত্র : সরওয়ার সাহেলের টাইমলাইন থেকে)

এমএমইউ

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
দয়া করে আপনার নাম লিখুন