ড্রোনের সাহায্যে ধর্ষিতাকে উদ্ধার, ধর্ষক আটক

ড্রোনের সাহায্য নিয়ে ধর্ষিতা এক নারীকে উদ্ধারের পাশাপাশি অভিযুক্ত ধর্ষককে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার ব্রিটেনে এ ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, একজন কিশোরী জরুরি সহায়তার নম্বরে ফোন করে অভিযোগ করে যে, সে অচেনা একটি জায়গায় একজন ব্যক্তির সঙ্গে রয়েছে।ওই ব্যক্তি তাকে ধর্ষণ করেছে।

অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ একটি ড্রোনের সাহায্যে তাকে খুঁজে বের করে। একইসাথে ওই সন্দেহভাজন ধর্ষককে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার সকালে ওই কিশোরী পুলিশের কাছে ৯৯৯ নম্বরে ফোন করে জানায়, সে বোস্টনের কোনও এক জায়গায় ওই ব্যক্তির সঙ্গে রয়েছে।

সেখানকার বর্ণনা শুনে পুলিশ ধারণা করে, সেটি একটি কারখানা এলাকা হবে। এরপর কর্মকর্তারা থার্মাল ক্যামেরা (যে ক্যামেরা তাপ সনাক্ত করতে পারে) বসানো একটি ড্রোন পাঠিয়ে তাদের অবস্থান সনাক্ত করার চেষ্টা করে।

এরপর তাদের দেখতে পেয়ে সেখানে অভিযান চালায় পুলিশ। `ধর্ষণকারী` সন্দেহে ৩০ বছরের ওই ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ।

লিঙ্কনশায়ার পুলিশের কর্মকর্তা ইন্সপেক্টর এড ডেল্ডারফিল্ড বলছেন, পুলিশ কর্মকর্তাদের গাড়িতেই তাপ সনাক্তকারী ক্যামেরা বসানো ওই ড্রোনটি ছিল।

সেটি আকাশে ওঠার পর দুজন মানুষের তাপমাত্রার উৎস সনাক্ত করে এবং ব্রাউন সড়কের কাছে ওই মেয়েটি এবং সন্দেহভাজন হামলাকারীর অবস্থান সম্পর্কে পুলিশকে তথ্য যোগায়।

জেএস/

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
দয়া করে আপনার নাম লিখুন